Here the Most Popular WordPress Theme and Plugins Get it now.

         

Home/ Freelancing Guide/Should We Have To Pay Tax on our Freelance Earning? // অর্থ উত্তোলনের উপায়সমূহ …

           
Should We Have To Pay Tax on our Freelance Earning? // অর্থ উত্তোলনের উপায়সমূহ ...

Should We Have To Pay Tax on our Freelance Earning? // অর্থ উত্তোলনের উপায়সমূহ …

February 15, 2021 Admin Freelancing Guide 1 comment 178

Reading Time: 3 minutes

কাজ সম্পন্ন হবার পর আপনার পাওনা টাকা ফ্রিল্যান্সিং সাইটে [upwork.com, freelancer.com peopleperhour.com, guru.com, 99designs.com, graphicriver.net, themeforest.net] আপনার একাউন্টে জমা থাকে। মাসের শেষে বা মাসের মাঝামাঝি বা যেকোন সময়ে আপনি আপনার ইনকাম দেশে নিয়ে আসতে পারবেন । এখানে টাকা উত্তোলনের কয়েকটি কার্যকর পদ্ধতি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হল:

১) সরাসরি ব্যাংকে আপনি টাকা নিয়ে আসত পারবেন (Bank to Bank Wire Transfer)
টাকা উত্তোলনের একটি নির্ভরযোগ্য ও নিরাপদ উপায় হচ্ছে ওয়্যার ট্রান্সফার। এই পদ্ধতিতে ৩ থেকে ৫ দিনের মধ্যে সম্পূর্ণ টাকা বাংলাদেশে আপনার ব্যাংক একাউন্টে সরাসরি এসে জমা হয়ে যাবে। প্রতিবার টাকা উত্তোলনে ৪ থেকে ৮ ডলার খরচ পড়বে। এই পদ্ধতিতে টাকা উত্তোলন করতে হলে আপনাকে নিম্নে উল্লেখিত তথ্যগুলো ফ্রিল্যান্সিং সাইটে প্রদান করতে হবে:

* যা লাগবে টাকা উত্তলন এর সময় একাউন্ট নাম্বার, ব্যাংক এর ঠিকানা, ব্যাংক এর SWIFT Code (https://www.swift-code.com/bangladesh/ http://www.theswiftcodes.com/bangladesh/ http://www.theswiftcodes.com/bangladesh/page/2/ )

* বর্তমানে বেশিরভাগ ব্যাংকই [Bank Asia, DBBL, Brac Bank, Isami Bank etc.] ইন্টারনেট ব্যাংকিং সুবিধা আছে।
* ফ্রিল্যান্সিং সাইটি যে দেশে অবস্থিত সেই দেশের একটি ব্যাংক এর নাম যা মধ্যবর্তী হিসেবে কাজ করবে। এজন্য আপনি আপনার ব্যাংক এ গিয়ে জেনে নিন তারা ওই দেশের কোন কোন ব্যাংক এর মাধ্যমে টাকা আদান-প্রদান করে থাকে।
* এরপর Routing নাম্বার আপনাকে সংগ্রহ করতে হবে যা আপনি ব্যাংকটির ওয়েবসাইট এ পেয়ে যেতে পারেন। ব্যাংক এর সাইটে না পেলে Google এ সার্চ করে দেখতে পারেন অথবা আপনার ব্যাংক থেকেও নিতে পারবেন । US ক্ষেত্রে এই নাম্বারকে বলা হয় ABA Routing Number ।

২) পেওনার ডেবিট মাস্টারকার্ড (Payoneer Debit Card)
উপরের দুটি পদ্ধতি থেকে সবচাইতে দ্রুত পদ্ধতি হচ্ছে Payoneer Debit Card । সম্প্রতি প্রায় সকল ফ্রিল্যান্সিং সাইটগুলো এই MasterCard সার্ভিসটি চালু করেছে। এই পদ্ধতিতে মাস শেষে আপনি টাকা খুবই দ্রুত পৃথিবীর যেকোন স্থান থেকে ATM এর মাধ্যমে উত্তোলন করতে পারেন। এজন্য এককালীন খরচ পড়বে ২৯ ডলার আর মাসিক খরচ পড়বে ৩ ডলারের মত। ATM থেকে প্রতিবার টাকা উত্তোলনের জন্য খরচ পড়বে ২ থেকে ৩ ডলার। এটা মনে হচ্ছে একটু বেশি তাই আপনি Payoneer সাইটে একটি একাউন্ট করতে পারেন। তারপর ১৫ থেকে ২০ দিনের মধ্যে আপনার ঠিকানায় একটি MasterCard পৌছে যাবে। কার্ডটি হাতে পাবার পর নির্দেশনা অনুযায়ী কার্ডটি সচল করতে হবে এবং ৪ সংখ্যার একটি গোপন পিন নাম্বার দিতে হবে। পরবর্তীতে এই নাম্বারের মাধ্যমে যেকোন ATM থেকে টাকা উত্তোলন করতে পারবেন। পর ওইটড্র থেকে পেওনিয়ার চার্জ অনেক কম কাটে। বলে রাখা ভাল বাংলাদেশে অনেকগুলো ব্যাংক এর ATM এই কার্ড সাপোর্ট করে না। তবে স্ট্যান্ডার্ড চাটার্ড ব্যাংক এর ATM থেকে আপনি সহজেই টাকা উত্তোলন করতে পারেন।

বিস্তারিত জানতে এই আর্টিকেলটি দেখুন

৩) স্ক্রিল – অর্থ লেনদেনের সহজ ও নিরাপদ পদ্ধতি

স্ক্রিল এর মাধ্যমে একজন ব্যবহারকারী থেকে অপর আরেকজনের কাছে মূহুর্তের মাধ্যে অর্থ লেনদেন করা যায়। এতে টাকা উইথড্র দিতে খরচ পড়ে সর্বোচ্চ ৩.৯৫ ডলার । অর্থ লেনদেনের জন্য প্রাপকের নাম বা ব্যাংক একাউন্ট কিছুই জানার প্রয়োজন নেই, কেবল তার ইমেইল ঠিকানাটিই যথেষ্ঠ। মানিবুকারস দিয়ে খুব সহজেই ৫০ হাজারের উপর ইকমার্স ওয়েবসাইট থেকে অনলাইনে কেনাকাটা করা যায়। মানিবুকারসকে আপনার ওয়েবসাইটের সাথে যুক্ত করে আপনি নিজেই একটি ইকমার্স সাইট চালু করতে পারবেন। বর্তমানে বেশিরভাগ ফ্রিল্যান্সি মার্কেটপ্লেসে মানিবুকারস সাপোর্ট করে। এক্ষেত্রে তুলনামূলকভাবে কম খরচ পড়ে, সেন্ড মানি মাত্র ১%। ফ্রিল্যান্সিং সাইট ছাড়া কোন ব্যক্তি থেকে অর্থ গ্রহণের জন্য কোন ফি দিতে হয় না। মানিবুকারসের একাউন্ট থেকে নিজের ব্যাংকে টাকা নিয়ে আসতে মাত্র ৩.৯৫ ডলার খরচ পড়ে।

ফ্রিল্নাসার আর্নিং এর উপর ট্যাক্স কাটে কিনা?

আপনার আর্নিং থেকে মার্কেটপ্রেল্স কিছু % কেটে নেয় যখন আপনি কাজটি সম্পূর্ণ করবেন। আর বাংলাদেশে যখন Widdraw করবেন আপনার টাকা তখন এটিম বা আদার কিছু পরিমাণ চার্জ কাটে। কার্ড ব্যবহার না করলে চার্জ কাটবে না। আপনি রকেট বা ডাচবাংলা মোবাইল ব্যাংকিং এ উইটড্র দিতে পারবেন। আপনি ট্যাক্স ইনফরমেশণ সাবমিট না করলে বাংলদেশের ট্যাক্সরেট থেকে অন্যদেশের ট্যাক্সরেট এ চার্জ নিবে সব মারর্কেট প্রেস এর আবার নিয়ম এক নয়। ট্যাক্স দিতে হলে বাংলাদেশেই দিন অন্য কোথাও দেয়ার কি দরকার।

আপনি আর্নি না করেই ট্যাক্স এর চিন্তা করতে যাবেন না।
যা শুধু আপনার সময়ের অপচয় মাত্র।
আগে আর্নি করুন কাজ শিখুন তারপর ভাবুন।

ধন্যবাদ সবাইকে।

আরও পড়ুনঃ- 50+ Free WordPress Theme Download

Related Posts

60 Best Construction Theme WordPress – Tredeware

If you want to attract more customers to a construction company, you need a website...

Digital marketing landing page template

What is a landing page? The landing page is the page where visitors arrive on...

WordPress 13+ Bookstores and Libraries Theme 2020

WordPress 13+ Bookstores and Libraries Theme 2020

At present time libraries are becoming popular every day because of the easy way to...

Highly Customizable Theme and Template

Highly Customizable Theme and Template

Bridge - Creative Multipurpose WordPress Theme BRIDGE is a responsive retina multi-purpose WordPress theme, suitable...

WordPress Themes

17 Best Responsive WordPress Classifieds Themes for Job Boards.

WordPress classifieds themes Are you looking for WordPress classifieds themes? Don't worry we are sharing...

Responsive Multi-Purpose Landing Page Template In 2021

Responsive Multi-Purpose Landing Page Template In 2021

HeroBike - Bike Shop HTML Template     HeroBike is a professional gorgeous template for...

Also You Can comment here without any account. Your email address will not be published. Required fields are marked.

One Comment

Disclosure:This page contains external affiliate links that may result in us receiving a commission if you choose to purchase mentioned product. The opinions on this page are our own and we do not receive additional bonus for positive reviews.

Md HridoyFrontend and backend web developer and web designer specialized in WordPress theme development and customization. I have knowledge almost 5 year in WordPress Theme Customization/WordPress theme Development/ CSS/HTML5/Bootstrap/javascript/jquery/PHP etc. Obsessed with application performance, user experience and simplicity.